পুলিশ যখন সাংবাদিকতা করবে, তখন বুঝতে হবে সব শেষ: ফখরুল

 পুলিশ যখন সাংবাদিকতা করবে, তখন বুঝতে হবে সব শেষ: ফখরুল

বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, দেশের সব ক্ষমতা এখন পুলিশের কাছে। পুলিশ যখন সাংবাদিকতা করবে, তখন বুঝতে হবে যে সব শেষ।

‘তারেক রহমানের ১৪তম কারামুক্তি দিবস’ উপলক্ষে শুক্রবার জাতীয় প্রেসক্লাবে উত্তরাঞ্চল ছাত্র ফোরাম ও বাংলাদেশ ছাত্র ফোরাম আয়োজিত এক আলোচনা সভায় তিনি এ কথা বলেন।

তিনি বলেন, ‘পুলিশকে অনেক ক্ষমতা দিয়েছেন। ওরা নিজেরাই বলে যে, বাতির রাজা ফিলিপস, মাছের রাজা ইলিশ, আর দেশের রাজা পুলিশ। এদের কাছেই এখন সব ক্ষমতা। পুলিশ যখন চোর-ডাকাত ধরা বাদ দিয়ে এই কাজ করবে, তখন তার কাছে কী আশা করা যাবে?’

বিএনপি মহাসচিব বলেন, ‘চারদিকে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী ব্যর্থ হচ্ছে। চাঁদা আদায় করছে গরিব মানুষকে আটকে রেখে। আর এর মধ্যে তারা আবার নতুন কাজ শুরু করেছে। পুলিশ সাংবাদিকতা করবে। এটা কিন্তু সুদূরপ্রসারী।’

আমলাদের সমালোচনা করে তিনি বলেন, ‘জেলায় ডিসি অফিসে যান, দেখবেন ওখানে কোনো প্রোগ্রামে আওয়ামী লীগের চেয়ে তারাই বেশি আওয়ামী লীগের দায়িত্ব পালন করে। আওয়ামী লীগ নেই তো এখন। এখন সব আমলা লীগ।’

মির্জা ফখরুল বলেন, ‘দেশের গণমাধ্যম কর্মীদের স্বাধীনতা খর্ব করা হয়েছে। তথ্যমন্ত্রী বলছেন, সোশ্যাল মিডিয়ায় বাইরে থেকে যেসব টিভি ও ভিডিও চালানো হচ্ছে, তা প্রচারণা করার জন্য এখন থেকে অনুমতি নিতে হবে।’

মেগা প্রজেক্টে দুর্নীতি হচ্ছে অভিযোগ করে তিনি বলেন, ‘সেদিন দেখলাম মেট্রোরেল উদ্বোধন করছে, মানুষ খুশি। বলছে, পরিবর্তন হবে। পরিবর্তন কী শুধু ঢাকায় এই কয়েকজন মানুষের জন্য। হাজার মানুষের পরিবর্তন কোথায়। সবকিছুর দাম বেড়েছে। চাল, তেল, আলু, চিনির দাম আকাশচুম্বী।’

বিএনপি মহাসচিব বলেন, ‘সরকার বলে তারা নাকি করোনা নিয়ন্ত্রণে সফল। এদিকে টিকা দিয়েছে মাত্র ৪ পার্সেন্ট। টিকা কোথা থেকে আসবে তাই তারা জানে না, বিতরণ কীভাবে করবে তাও জানা নেই।’

আলোচনা সভায় অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী, আয়োজক সংগঠনের সভাপতি আমিরুল ইসলাম খান আলিম, বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক শামা ওবায়েদ, ছাত্রদলের সভাপতি ফজলুর রহমান খোকন প্রমুখ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *