বসনিয়ার মুসলমানদের পাশে দাঁড়ানোর ঘোষণা দিলেন এরদোগান

 বসনিয়ার মুসলমানদের পাশে দাঁড়ানোর ঘোষণা দিলেন এরদোগান

তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়্যিপ এরদোগান বলেছেন, বসনিয়া ও হার্জেগোভিনার কল্যাণের জন্য কাজ করার ক্ষেত্রে তুরস্ক সংকল্পবদ্ধ। তুরস্কের ইস্তান্বুলে বসনিয়ার বেসরকারি সংস্থার প্রতিনিধিদের সঙ্গে রুদ্ধদ্বার বৈঠকে এরদোগান এ কথা জানান। খবর ডেইলি সাবাহর।

বৈঠকে তুরস্কের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী সুলেইমান সোইলু এবং প্রেসিডেন্টের মুখপাত্র ইব্রাহিম কালিন উপস্থিত ছিলেন। তুরস্কের প্রেসিডেন্ট বলেন, বসনিয়া ও হার্জেগোভিনায় বহু সাংস্কৃতিক ও জাতিগত পরিচয় সংরক্ষণ ও স্থিতিশীলতার জন্য আমরা কোনো বৈষম্য ছাড়াই সহায়তা দিয়ে আসছি।

বসনিয়ার যুদ্ধে মুসলমানদের পক্ষে তুরস্কের অবস্থানের কথা তুলে ধরে এরদোগান বলেন, তুরস্ক সবসময় ‘অনেক শক্তিশালী হয়ে ও ভিন্ন উপায়ে’ বসনিয়ার জনগণের পাশে দাঁড়াবে। বসনিয়া ও হার্জেগোভিনায় তুরস্কের যে উন্নয়ন প্রকল্প চলছে এতে শুধু বসনিয়ান নয় সার্ব এবং ক্রোয়েটসরাও লাভবান হবেন।

তুরস্কের প্রেসিডেন্ট বলেন, তুরস্ক বলকান অঞ্চলের সামগ্রিক পরিস্থিতি পর্যালোচনা করছে। এ অঞ্চলের প্রতিটি ঘটনা তুরস্ক নিজের অভ্যন্তরীণ বিষয় হিসেবে বিবেচনা করে। এ ছাড়া এ অঞ্চলের সমস্যার সমাধানে তুরস্ক প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিচ্ছে। আর তুরস্ক সবসময় বসনিয়া ও হার্জেগোভিনা এবং বলকান অঞ্চলের কল্যাণে কাজ করবে।

তুরস্ক বসনিয়াকে ফের ১৯৯০ এর দশকের মতো ভোগান্তিতে পড়তে দেবে না বলে উল্লেখ করেন এরদোগান। তুরস্কের প্রেসিডেন্ট বলেন, বসনিয়ায় বর্তমানে তুরস্কের সরাসরি বিনিয়োগ ২৫০ মিলিয়ন মার্কিন ডলার ছাড়িয়েছে। আমরা দ্বিপক্ষীয় বাণিজ্য বাড়াতে আগ্রহী। মহামারি সত্ত্বেও গত বছর যা ছিল ৬৫০ মিলিয়ন মার্কিন ডলার।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *