মোংলা বন্দরে ডুবে গেছে কয়লাবোঝাই বাল্কহেড, নিখোঁজ ৩

 মোংলা বন্দরে ডুবে গেছে কয়লাবোঝাই বাল্কহেড, নিখোঁজ ৩

বাগেরহাটের মোংলা বন্দরের হারবাড়িয়া এলাকায় জাহাজের ধাক্কায় এমবি ফারদিন নামে কয়লাবোঝাই একটি বাল্কহেড ডুবে গেছে। নিখোঁজ রয়েছে বাল্কহেডের তিন কর্মচারী।

সোমবার রাত সাড়ে ৯টায় বাল্কহেডডুবির ঘটনা ঘটে।

জানা গেছে, বন্দরের হারবাড়িয়া ৯ নাম্বারে অবস্থানরত বিদেশি জাহাজ এমভি এলিনা বি থেকে কয়লাবোঝাই করে ঢাকা মিরপুরের উদ্দেশে ছেড়ে যায় এমবি ফারদিন ১ বাল্কহেডটি। ওই সময় বিপরীত দিক থেকে বন্দর ত্যাগ করার সময় বিদেশি জাহাজ এমভি হ্যান্ডপার্ক নামক জাহাজের সঙ্গে ধাক্কা লাগে কয়লাবোঝাই বাল্কহেডটির। এর পর আস্তে আস্তে পানি ঢুকে বাল্কহেডটির পেছনের অংশ ডুবে যায়। এসময় এমভি এলিনা বি জাহাজের কয়লা খালাসকারী প্রতিষ্ঠান মেসার্স টি হক-এর  লঞ্চ এসে লাইটারের দুই কর্মচারী ও এক আনসারকে উদ্ধার করে। এখনো নিখোঁজ রয়েছে বাল্কহেডের তিন কর্মচারী।

মেসার্স টি হক কোম্পানির সুপারভাইজর মো. লোকমান হোসেন জানান, দুর্ঘটনার পর তিনি বাংলাদেশ কোস্টগার্ড, নৌবাহিনী ও বন্দরের সংশ্লিষ্ট শাখাকে জানিয়েছেন। তবে রাত ১২টার মধ্যে কারও সহযোগিতা না পাওয়ায় তিনি ক্ষোভ প্রকাশ করেন।

সুপারভাইজার লোকমান হোসেনের দাবি, ডুবে যাওয়া বাল্কহেডটিতে ৫০০ থেকে ৬০০ মেট্রিক টন কয়লা থাকতে পারে। রাত ১২টার সময়েও বাল্কহেডটির কিছু অংশ দেখা যাচ্ছিল।

মোংলা বন্দর কর্তৃপক্ষের হারবার মাস্টার কমান্ডার ফকর উদ্দিন বলেন, বাল্কহেডটি আংশিক ডুবে গেছে। এতে জাহাজ চলাচলে কোনো প্রভাব পড়বে না। উদ্ধারে দ্রুত ব্যবস্থা নেওয়া হবে। 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *